ঢাকা - ডিসেম্বর ১২, ২০১৯ : ২৮ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬

ফেলে দেয়া মেয়ের মাসে আয় ৫০ লাখ টাকা

নিউজ ডেস্ক
ডিসেম্বর ০২, ২০১৯ ০৮:৩৮
২৬৬ বার পঠিত

জন্মের পর বাবা-মা দেখলেন মেয়ের দুটি পা নেই। মেয়ে অস্বাভাবিক। এ দেখে মাথায় যেন আকাশ ভেঙে পড়ল বাবা-মায়ের। আফসোসেরও শেষ ছিল না তাদের। মেয়ে পঙ্গু তাই শিশু বয়সেই রাস্তায় ফেলে দেন নিষ্ঠুর বাবা-মা। কিন্তু সেই মেয়েই যে একদিন বড় হয়ে বিশ্বকে অবাক করে দিয়ে সুপার মডেল হবে তা কে জানতো!

২৩ বছর বয়সী সুপার মডেলের নাম সেসর। দুই পা না থাকলেও ইচ্ছা আর মনোবলের জোরেই বর্তমানে তিনি সুপার মডেল। প্রতিবন্ধকতাকে জয় করে এরইমধ্যে চমকে দিয়েছেন গোটা বিশ্বকে।

সেসরের জন্ম থাইল্যান্ডে। জন্ম থেকেই শারীরিকভাবে পঙ্গু মেয়ের বাবা-মা তাকে রাস্তায় ফেলে চলে যান। এরপর শিশু সেসরের ঠিকানা হয় অনাথ আশ্রমে। সেখান থেকেই তাকে দত্তক নিয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে নিয়ে যান জিমি ও মারিয়ান সেসর নামের এক দম্পতি। সন্তানস্নেহে বড় করেন বিকলাঙ্গ মেয়েকে।

সেসর আজ বিভিন্ন পোশাক নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের সুপরিচিত মডেল। দি ইনডিপেন্ডেন্টকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সেসর জানিয়েছেন, শুধু বিজ্ঞাপন থেকেই মাসে ৫০ লাখ টাকা (৬০ হাজার ডলার) আয় করেন।

দি ইনডিপেন্ডেন্ট



মন্তব্য