ঢাকা - মে ২৪, ২০১৯ : ৯ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬

ইথিওপিয়ার বিধ্বস্ত বিমানের ব্ল্যাক বক্স প্যারিসে

নিউজ ডেস্ক
মার্চ ১৫, ২০১৯ ০৯:৩৫
৫৭ বার পঠিত

ফ্রান্সের তদন্তকারীরা গতকাল বৃহস্পতিবার ইথিওপিয়ান এয়ারলাইন্সের বিধ্বস্ত বিমানের ব্ল্যাক বক্স গ্রহণ করেছেন। তারা এ থেকে দুর্ঘটনার কারণ চিহ্নিত করার চেষ্টা করবেন।

কোথায় তদন্ত হওয়া উচিত এ নিয়ে দৃশ্যত রশি টানাটানির পর ফ্লাইট ডাটা ও ককপিট ভয়েস রেকর্ডার প্যারিসে আসে এবং ফ্রান্সের বিমান দুর্ঘটনা তদন্ত সংস্থা বিইএ বলেছে তারা দিনের শেষে সেটি গ্রহণ করবে।

স্যাটেলাইট ডাটা ও ঘটনাস্থল থেকে পাওয়া প্রমাণাদিতে গত বছর অক্টোবরে ইন্দোনেশিয়ায় বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনার সাথে কিছু মিল থাকা এবং অভিন্ন কারণ থাকার সম্ভাবনার কথা উল্লেখ করে যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল এভিয়েশন অ্যাডমিনিস্ট্রেশন বুধবার ৭৩৭ ম্যাক্স বিমানের উড্ডয়ন নিষিদ্ধ করেছে। ফলে এই তদন্ত আরো জরুরি হয়ে পড়েছে।

গত রোববার ১৪৯ জন যাত্রী ও আটজন ক্রু নিয়ে ইথিওপিয়ান এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট ইটি-৩০২ উড্ডয়নের মাত্র ছয় মিনিটের মধ্যে বিধ্বস্ত হয়। এতে ১৫৭ আরোহীর সবাই নিহত হন।

বোয়িং ৭৩৭ ম্যাক্স ৮ বিশেষ মডেলের ওই বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার পর বিভিন্ন দেশ এই বিমানের উড্ডয়ন নিষিদ্ধ করে। বিমান নির্মাতা কোম্পানি বোয়িং ২০১৬ সালে বি ৭৩৭ ম্যাক্স ৮ বিমান বাজারে ছাড়ে। নির্মাণ শুরু হয় ২০১১ সালে। গত বছর অক্টোবরে লায়ন এয়ারের একই মডেলের একটি বিমান ইন্দোনেশিয়ার উপকূলের অদূরে বিধ্বস্ত হয়। এতে মারা যান ১৯০ জন। পাঁচ মাসেরও কম সময়ে এ মডেলের দু’টি বিমান বিধ্বস্ত হওয়ায় ব্যাপক সমালোচনার মধ্যে রয়েছে এটির উৎপাদনকারী কোম্পানি বোয়িং।

রয়টার্স



মন্তব্য