ঢাকা - এপ্রিল ২৩, ২০১৮ : ৯ বৈশাখ, ১৪২৫

পাকিস্তানে পুলিশ প্রশিক্ষণ কলেজে আত্মঘাতী হামলা, নিহত ৬০ আহত শতাধিক

নিউজ ডেস্ক
অক্টোবর ২৫, ২০১৬ ১৪:১২

thumb_1512_522x341_0_0_cropপাকিস্তানের কোয়টায় একটি পুলিশ প্রশিক্ষণ কলেজে আত্মঘাতী জঙ্গি হামলা হয়েছে। এতে ৬০ জন নিহত ও শতাধিক জন আহত হয়েছে। সোমবার রাত সাড়ে নয়টায় মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটে। নিহতদের অধিকাংশ ক্যাডেট শিক্ষার্থী। হামলার সময় ওই প্রশিক্ষণ কলেজে ৬০০ ক্যাডেট ছিল। তাদের সকলকে উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে রয়টার্স।


রয়টার্স জানায়, তিন জন আত্মঘাতী জঙ্গি বোমাবাহী পোশাক পরে প্রশিক্ষণ কলেজের মূল গেইট দিয়ে ঢোকে। এসয় তারা গেটে দাঁড়ানো পাহারাদারদের গুলি করে হত্যা করে। কলেজের ভিতরে ঢুকে এরা সেখানে বোমা বিস্ফোরণ ঘটায়। পরে প্রশিক্ষণ শিবিরে থাকা লোকজনদের জিম্মি করে। এদিকে ঘটনার খবর জানতে পেরে পাকিস্তানের সেনাবাহিনী ও সেখানকার পুলিশ যৌথ অভিযানে নামে। আত্মঘাতী বন্দুকধারীদের সঙ্গে তাদের চার ঘণ্টাব্যাপী গুলি বিনিময় চলে । পরে আত্মঘাতী দুই জঙ্গি নিজেদেরকে বোমা মেরে উড়িয়ে দেয়। তৃতীয় জঙ্গি সেনাবাহিনীর গুলিতে নিহত হয়। সেনা-পুলিশের এই যৌথ অভিযান শেষ হয়েছে। সেনাদের কেউ কেউ গুরুতর আহত হয়েছে বলে জানিয়েছে সেখানকার স্থানীয় কর্তৃপক্ষ।





এসব হামলাকারী প্রতিবেশী আফগানিস্তান থেকে এসেছিল বলে দাবি পাকিস্তান কর্তৃপক্ষের। অভিযানের সময় এরা আফগানিস্তানে যোগাযোগ করছিল বলেও দাবি করা হয়।


এর আগে স্থানীয় পুলিশ কর্মকর্তা মেজর জেনারেল শের আফগান বলেন, অভিযানের পুরো ঘটনা তিনি এখনো জানেন না। হতাহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে তিনি জানান।


জঙ্গী সঙ্গঠন আই এস এই ঘটনার দায় স্বীকার করেছে।


বাংলাদেশ২৪অনলাইন/এএন



মন্তব্য