ঢাকা - ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৮ : ৫ ফাল্গুন, ১৪২৪

নকল ধরায় শিক্ষককে বেদম প্রহার করলো স্কুল ছাত্রলীগ সভাপতি!

নিউজ ডেস্ক
ডিসেম্বর ০১, ২০১৭ ১৬:১২

সারা দেশে মাধ্যমিক স্কুলে ছাত্রলীগের কমিটি করার ঘোষণা নিয়ে চলমান বিতর্কের মধ্যেই পিরোজপুরে স্কুল শিক্ষককে পেটানোর অভিযোগে ওই স্কুল কমিটির ছাত্রলীগ সভাপতিকে বহিষ্কার করা হয়েছে। একই সাথে বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়েছে স্কুল কমিটি।

পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলার শ্রীরামকাঠী ইউজেকে মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটেছে। বহিষ্কৃত সভাপতির নাম শাহ আমানত শান্ত। সে শ্রীরামকাঠী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আলী হায়দার মৃধার ছেলে।


জানা গেছে, এসএসসির টেস্ট পরীক্ষা চলাকালীন নকল ধরার কারণে গত বুধবার সন্ধ্যায় শাহ আমানত শান্ত ও তার সহযোগীরা শিক্ষক সন্তোষ দেউরীর উপর হামলা চালায়। সন্তোষ আহত শিক্ষক দেউরীকে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ওই স্কুল শিক্ষক সন্তোষ দেউরীর অভিযোগ, ছাত্রলীগের স্কুল কমিটির সভাপতি শাহ আমানত শান্ত নিয়মিত মাদক সেবন করত। তাকে মাদক সেবনে বারণ করায় সে আমার ওপর আগে থেকেই ক্ষুব্ধ ছিল। তবে এসএসসির টেস্ট পরীক্ষা দেয়ার সময় শান্তকে নকল করা অবস্থায় হাতেনাতে ধরে ফেলার পরে সে আরও ক্ষেপে যায়।

তিনি আরও অভিযোগ করেন, এ ঘটনার রেশ ধরে বুধবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে শান্ত এবং তার সহযোগী মেহেরাব ও তন্ময়সহ কয়েকজন মিলে শ্রীরামকাঠী বন্দরে আমার বাসায় ঢুকে বেদম প্রহার করে।



শ্রীরামকাঠী ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি নাইম হাওলাদার বলেন, শিক্ষককের উপর হামলার ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ইউজেকে মাধ্যমিক বিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শান্তকে দল থেকে বহিষ্কারের সুপারিশ করেছি এবং ঘটনার পরপরই ওই বিদ্যালয়ের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়েছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রমেন্দ্র নাথ জানান, বিষয়টি গুরুতর। সবাইকে নিয়ে বসে তারা শান্তর বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন।



মন্তব্য